এবার ক্ষমা চাইলেন ডা.মুরাদ হাসান

প্রধানমন্ত্রীর নিকট ক্ষমা চাইলেন ডা.মুরাদ হাসান

সাবেক তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ও জামালপুর৪ আসনের সংসদ ডা.মুরাদ হাসান সাধারণ ক্ষমার আবেদন করেন। 

বৃহস্পতিবার, আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে জাতীয় সংসদের প্যাডে ডা.মুরাদ এই আবেদন করেন। 

ডা.মুরাদের ব্যক্তিগত সহকারী জাহিদ নাইম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন,”ডা.মুরাদের পক্ষে আজ (২৩ ডিসেম্বর) বৃহস্পতিবার ধানমন্ডি আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে গিয়ে চিঠিটি আমি দিয়ে এসেছি।

চিঠিতে সাধারণ ক্ষমার আবেদনে ডা.মুরাদ বলেন,’ আমার বাবা মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক বীর মুক্তিযুদ্ধো মতিয়র রহমান তালুকদার ছিলেন জামালপুর জেলা আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাকালীন সভাপতি।  জামালপুর জেলা আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালনকালে ২০২১ সালে ৭ ডিসেম্বর ওই পদ থেকে আমাকে অব্যাহতি প্রদান করে।আমি একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান হিসেবে দৃঢ় প্রত্যয়ে অঙ্গীকার করিতেছি যে ভবিষ্যতে এমন কোনো কর্মকাণ্ড করব না,যার ফলে আপনার বিন্দুমাত্র সম্মানহানি হয়। অতএব বিনীত নিবেদন এই যে,বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সব কার্যক্রমে অংশ গ্রহনের সুযোগ প্রদান করে বাধিত করবেন।

উল্লেখ্য গত বছর ২০২১ সালে এক বাংলাদেশী চিত্রনায়িকার সঙ্গে ডা. মুরাদ এর ফোনালাপ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। 

এর পর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জামালপুর(সরিষাবাড়ী)

আসনের এই সংসদ সদস্যকে মন্ত্রী সভা থেকে পদত্যাগ করার নির্দেশ দেন। 

সেই বছর ৭ ডিসেম্বর ডা.মুরাদ পদত্যাগ করলে ওই রাতেই মন্ত্রী পরিষদ বিভাগ থেকে তার পদত্যাগ পত্র গ্রহণ করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। 

উল্লেখ্য বর্তমানে ডা.মুরাদ হাসান  তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্য।

মেয়র পদে পুনর্বহাল জাহাঙ্গীর আলম 

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button